ঢাকা মঙ্গলবার | ২৫শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১১ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

আগামী নিউজ
১৯ মার্চ, ২০১৮ | ১২:০৮

কাঠমান্ডুতে প্রথম জানাজা সম্পন্ন, ২৩ মরদেহ আসছে বিকেলে

tesst

নেপালের কাঠমান্ডুর ত্রিভুবন বিমানবন্দরে ইউএস-বাংলার বিমান দুর্ঘটনায় নিহত ২৩ বাংলাদেশির প্রথম জানাজা সম্পন্ন হয়েছে। সোমবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে নেপালে বাংলাদেশ দূতাবাসে তাদের জানাজা সম্পন্ন হয়।

নেপালে বাংলাদেশ দূতাবাসের একটি সূত্র এ তথ্য নিশ্চিত করেছে। জানাজায় বাংলাদেশ দূতাবাসের কর্মকর্তারা ছাড়াও নেপাল সরকারের ঊর্ধ্বতন প্রতিনিধিরা অংশ নেন।

জানাজা শেষে মরদেহগুলো ত্রিভুবন বিমানবন্দরে নেয়া হচ্ছে। সেখান থেকে বাংলাদেশ বিমান বাহিনীর একটি উড়োজাহাজে মরদেহগুলো ঢাকায় আনা হবে।

আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ পরিদপ্তরের (আইএসপিআর) এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, বিমানবাহিনীর বিশেষ বিমানযোগে সোমবার বিকেল ৩টায় মরদেহগুলো ঢাকায় পৌঁছবে।

১২ মার্চ বিমান দুর্ঘটনায় নিহত ৫১ জনের মধ্যে ২৬ জন বাংলাদেশি। এ পর্যন্ত ২৩ জনের মরদেহ শনাক্ত করা গেছে। আরও ছয়টি মরদেহ শনাক্ত হলেও তাদের মধ্যে বাংলাদেশি রয়েছেন কি-না, তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

শনাক্ত ২৩ জন হলেন- বিলকিস আরা, আখতারা বেগম, মো. রকিবুল হাসান, মো. হাসান ইমাম, মিনহাজ বিন নাসির, তামারা প্রিয়ন্ময়ী, মো. মতিউর রহমান, এসএম মাহমুদুর রহমান, তাহারা তানভীন শশী রেজা, অনিরুদ্ধ জামান, রফিক উজ জামান, উম্মে সালমা, আঁখি মনি, নুরুন্নাহার, শাহিন আক্তার নাবিলা, এফএইচ প্রিয়ক, কেএইচএম সাফে এবং পাইলট আবিদ সুলতান, কো-পাইলট পৃথুলা রশীদ, খাজা সাইফুল্লাহ, ফয়সাল, সানজিদা ও নুরুজ্জামান। এ ছাড়া আরিফুজ্জামান, পিয়াস রায় এবং নজরুল ইসলামের মরদেহ রোববার রাত সাড়ে ৮টা পর্যন্ত শনাক্ত করা যায়নি।

বিষয়সমূহঃ