ঢাকা মঙ্গলবার | ৭ই এপ্রিল, ২০২০ ইং | ২৪শে চৈত্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

আগামী নিউজ ডেস্ক
৫ আগস্ট, ২০১৮ | ১২:১৪

শিক্ষার্থীদের ঘরে ফিরতে বললেন এরশাদ

tesst

নিরাপদ সড়কের দাবিতে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের এবার ঘরে ফিরতে বলেছেন সাবেক রাষ্ট্রপতি জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ। রোববার সকালে গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে তিনি আন্দোলনকারীদের প্রতি এ আহ্বান জানান। তার বিবৃতি হুবহু তুলে ধরা হলো:

“নিরাপদ সড়কের দাবীতে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের প্রতি আমি পূর্ণ সমর্থন জানাই। এই দাবি এদেশের মানুষের প্রাণের দাবি। এই দাবি আদায়ে আমাদের কোমলমতি ছাত্র-ছাত্রীরা রাজপথে নেমে যে প্রতিবাদ জানিয়েছে এবং শান্তিপূর্ণভাবে রাস্তায় অবস্থান নিয়ে যেভাবে দাবি আদায় করে নিয়েছে- তার জন্য তাদের অভিনন্দন। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শিক্ষার্থীদের প্রতি সহানুভুতিশীল হয়ে কালবিলম্ব না করে যে তাদের দাবী মেনে নেয়ার আশ্বাস দিয়েছেন, তার জন্য প্রধানমন্ত্রীকেও আন্তরিক ধন্যবাদ জানাই।

এরশাদ বলেন, “এখন শিক্ষার্থীদের আমি অবিলম্বে রাজপথ ছেড়ে ঘরে এবং ক্লাসে ফিরে যাবার অনুরোধ জানা”িছ। কারণ, এর পরেও তারা রাজপথে অবস্থান করলে কারো জন্য মঙ্গলকর কিছু হবেনা। একই সাথে এই ছাত্র আন্দোলনকে পুঁজি করে কোনো স্বার্থান্বেষী মহল যেনো রাজনৈতিক ফায়দা লোটার চেষ্টা করতে না পারে তার জন্য সকল মহলকে আমি সতর্ক থাকার আহ্বান জানাচ্ছি।”

সাবেক রাষ্ট্রপতি বলেন, “আমি মনে করি, শিক্ষার্থীরা নিরাপদ সড়কের দাবীতে যা করেছে- তা যথেষ্ট। আমার বিশ্বাস এই নতুন প্রজন্ম আগামী দিনে দেশের দায়িত্ব গ্রহণ করে দেশকে সঠিকভাবে পরিচালনা করতে পারবে। এখন দাবী মেনে নেয়ার আশ্বাসের পর আর তাদের রাস্তায় থাকা এবং যানবাহন চলাচল নিয়ন্ত্রণের কাজ করা ঠিক হবেনা। ছাত্র-ছাত্রীরা অনেক শিক্ষা দিয়েছে। এখন যার যে কাজ তাকেই তা করতে দিতে হবে। কোনোভাবে এই আন্দোলন রাজনৈতিক হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহৃত হলে- মূল আন্দোলনের মাহাত্মটাই বিলিন হবে।”

“ইতোমধ্যে আমরা একটি রাজনৈতিক দলের এক নেতার উস্কানিমূলক বক্তব্য শুনেছি- অনেক গুজব শুনেছি। সুতরাং শিক্ষার্থীদের সেইসব উস্কানি বা গুজবে কান দিয়ে বিভ্রান্ত হওয়া ঠিক হবেনা। যে কোনো আন্দোলন যখন তার আওতার মাত্রা ছাড়িয়ে যায়- তখন তা হঠকারিতায় রূপ নেয়। সেটা মূল আন্দোলনকে ক্ষতিগ্রস্ত করে। আমি আশা করি, আমাদের সন্তানরা নিরাপদ সড়কের দাবীতে যা করতে পেরেছে- তা একটি মাইলফলক হয়ে থাকবে এবং এই মাহাত্ম বজায় থাকতেই তারা ক্লাসে ফিরে যাবে। আমি অভিভাবকদের প্রতিও আহ্বান জানাই- আপনারা আপনাদের সন্তানকে ঘরে ফিরিয়ে নিন এবং তাদের ক্লাসে পাঠিয়ে দিন। শিক্ষকদের প্রতি আহ্বান জানাই- আপনারা আপনাদের ছাত্র-ছাত্রীদের ক্লাসে ফিরিয়ে আনুন। এই ছাত্র আন্দোলনকে অজুহাত করে- যে পরিবহন ধর্মঘট পালন করা হচ্ছে তা অবিলম্বে প্রত্যাহার করার জন্যও আমি আহ্বান জানাচ্ছি।”

আগামীনিউজ২৪.কম/কেএম

বিষয়সমূহঃ