ঢাকা শুক্রবার | ১৭ই সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ২রা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

আগামী নিউজ ডেস্ক
৪ জুন, ২০১৮ | ০১:০১

‘নির্বাচনী বছরে ভুল কথা’র মাশুল গুনতে হতে পারে’

tesst

রাশেদা রওনক খান: বেশ কয়েকমাস ধরে লেখালেখি হতে অনেকটাই দূরে সরে আছি থিসিস এর শেষ পর্যায়ের কাজ নিয়ে ব্যস্ততার কারণে, ফেসবুকেও প্রায় নিষ্ক্রিয়| এই মুহূর্তে থিসিস ছাড়া আমার ভাবনায় আর কিছু যেন স্থান না পায়, তাই পত্রিকা পড়া/টেলিভিশন এর সংবাদ দ্যাখা থেকেও দূরে থাকার চেষ্টা করছি মাঝে মাঝেই|

কিন্তু এমন একটি ঘটনা ঘটে গেলো যে, সব কিছু ছাপিয়ে চলে এলো সামনে, “অন্ধ হলে কি প্রলয় বন্ধ থাকে?” ফেসবুকের কল্যাণে দেখতে পাই মেয়ে দুটার চোখ, তাদের বাবার দুপাশে দাঁড়িয়ে দুষ্টুমি মাখা ছবি| তারপর অন্যান্য ছবি..গল্প….সত্য মিথ্যা মেশানো নানা কাহিনী, পাল্টা কাহিনী। জানিনা, কোনটা ঠিক আর কোনটা মিথ্যা| কয়েকটা দিন ধরে একটা চাপা কষ্ট নিয়ে বেড়াচ্ছি বাচ্চাগুলোর আর্তনাদের কথা ভেবে| বার বারই ভাবছি কিছু একটা লিখবো…ভেবে আবার থেমে যাই, হতাশায় ডুব দেই। কি হবে এসব লেখালেখি করে? লিখছে তো সবাই…আবার সবাই সব ভুলেও যাচ্ছি ক’দিন পর| আমরা তো ‘এম্নেসিয়া’ তে ভুগছি, ভুলে যাবার রোগে আক্রান্ত এখন পুরো জাতি!

মিডিয়া এখন হৈ চৈ করছে, আবার সময়ের সাথে সাথে ‘চাপ’ আসবে, সেই চাপে সব চুপ হয়ে যাবে| আর আমরাও ফেসবুকে ব্যস্ত হয়ে পড়বো নতুন কোন ইস্যু নিয়ে! যেমন, কেকা ফেরদৌসির ন্যুডলস রেসিপি কিংবা মাহফুজুর রহমানের গান নিয়ে কিংবা কে কতরকমের পদ বানিয়ে ইফতারির দাওয়াত দিচ্ছি বা খাচ্ছি! তনুর কথা এখন ক’জনের মনে পড়ে? তাই চুপ করে নিজের কাজ করে যাচ্ছিলাম| অনেকেই ইনবক্সে অডিও রেকর্ডটি পাঠিয়েছে, কিন্তু একটু শোনার পর আর সাহস কুলোয় না যে পুরোটা শুনব| আর তা নিয়ে লেখা/বলা আরও দুরহ ঠেকে আমার কাছে|

কিন্তু আজ ‘এক/দুই টা ভুল হতেই পারে’ শুনে খুব মন খারাপ হয়ে গেলো| নির্বাচনী বছরে এই এক/দুইটি ভুল কাজ এবং ভুল কথা’র মাশুল গুনতে হতে পারে, সেটিও কিন্তু সময়ে সময়ে এক/দুই বার মনে রাখা দরকার! এখন উচিত হবে এই ধরনের রাজনৈতিক বাগাড়ম্বরতায় না জড়িয়ে বরং সত্যকে অনুসন্ধান করা, যদি সত্যিই তিনি মাদকব্যবসায়ী হয়ে থাকেন তা সাহসের সাথে উপযুক্ত তথ্য-উপাত্ত-প্রমান দিয়ে জানান দেয়া, নয়তো দোষীদের খুঁজে বের করে আসামীর কাঠগড়ায় দাঁড় করানো| কেবল প্রতিশ্রুতি, স্তুতিবাক্য আর আশ্বাসের রাজনীতি নয়, বিশ্বাস তৈরি হউক, আস্থার সম্পর্ক তৈরি হউক সরকার ও জনগণের মাঝে-এটুকুই চাওয়া!

লেখক:
সহকারী অধ্যাপক, নৃবিজ্ঞান বিভাগ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়। 
লেখকের ফেসবুক প্রোফাইল থেকে সংগৃহীত

বিষয়সমূহঃ